অনিশ্চয়তায় শাকিব খানের ‘ভাইজান এলো রে’

মিডিয়া ভূবন২৪ : এখনই বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সমিতির সদস্যপদ পাচ্ছেন না কলকাতার নির্মাতা জয়দীপ মুখার্জি। বাংলাদেশের ছবি হিসেবে ‘ভাইজান এলো রে’ ছবিটি নির্মাণের জন্য জয়দীপ পরিচালক সমিতির কাছে অতিথি সদস্য হতে চেয়ে আবেদন করেছিলেন গত রোববার। কিন্ত অভিযোগ উঠেছে যে ছবিটি নির্মাণের জন্য তিনি অনুমতি চাইছেন, সেই ছবিটির কাজ তিনি আগেই কলকাতা ও লণ্ডনে শেষ করেছেন। এমন অবস্থায় এটিকে প্রতারণা হিসেবে দেখছে সমিতি।

মূলত, কলকাতার প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান এসকে মুভিজ প্রযোজিত ছবি ‘ভাইজান এলোরে’ নামের এই ছবিটি বাংলাদেশে মুক্তির প্রক্রিয়া করতেই জয়দীপ মুখার্জির বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সদস্য পদ প্রয়োজন। কিন্তু বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির মহাসচিব বদিউল আলম খোকন জাগো নিউজকে জানালেন, ‘পরিচালক সমিতির সদস্য পদ পাচ্ছেন না জয়দীপ।’

বদিউল আলম খোকন বলেন, ‘আমি বাংলাদেশে একটি ছবি নির্মাণ করে কলকাতার ছবি হিসেবে সেটিকে মুক্তি দেওয়ার জন্য যদি সেখানকার পরিচালক সমিতির সদস্য হতে যাই, তারা কি আমাকে সদস্য করবেন? একটি ছবি নির্মাণের আগে সেই ছবির নাম লিপিবদ্ধ করতে হয়। যেই ছবি আগেই বিদেশি ছবি হিসেবে নির্মাণ হয়েছে বিদেশে, সেই ছবির জন্য কেমন করে আমরা তাকে সদস্য করি ? তাকে সদস্যপদ দেয়ার মানে হচ্ছে সমিতির গঠনতন্ত্রের সঙ্গে প্রতারণা করা। একজন বিদশি নাগরিকের জন্য এটা কখনই সম্ভব নয়।’

খোকন বলেন, ‘জয়দীপ সাহেব যদি বাংলাদেশের ছবি নির্মাণ করতে চান, তাহলে সেটা বানাতেই পারেন। তবে যাবতীয় নিয়ম কানুন মেনেই তা নির্মাণ করতে হবে। মিথ্যে ইনফরমেশন দিয়ে এদেশের পরিচালক সমিতির সদস্য হওয়া যাবে না। যে ছবিটি তিনি নির্মাণ করতে চান, সেই ছবি তো হয়ে গেছে। এরই মধ্যে সেই ছবির টিজার, পোস্টার প্রকাশও হয়েছে। শুরুতেই তিনি প্রতারণা করতে চেয়েছেন। যে কারণে আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি, তিনি বাংলাদেশে কোনো ছবি নির্মাণ করতে পারবেন না। এমনকি উনার কোনো ছবি সাফটা চুক্তির মাধ্যমেও বাংলাদেশে মুক্তি দিতে পারবেন না।’

বদিউল আলম খোকন আরও বলেন, ‘পৃথিবীর যেকোনো দেশের নাগরিক যদি বাংলাদেশের স্থানীয় ছবি নির্মাণ করতে চান, তাহলে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সদস্যপদের জন্য আবেদন করতে হবে ছবি নির্মাণের আগে। সে ক্ষেত্রে তিনি যে দেশের নাগরিক, তার পাসপোর্টের ফটোকপি, সেই দেশের পরিচালক সমিতির সনদসহ কিছু প্রয়োজনীয় কাগজ জমা দিবেন। সঙ্গে কোন ছবিটি আপনি নির্মাণ করতে চান, তার নাম অবশ্যই জমা দিতে হবে শিল্পীদের নামসহ। জয়দীপ মুখার্জি সব কাগজ জমা দিয়েছেন, কিছু বিষয়ে গরমিল পেয়েছি। যে কারণে তিনি আমাদের পরিচালক সমিতির সদস্যপদ পাবেন না। এমনকি উনার পরিচালিত কোনো ছবি বাংলাদেশে মুক্তি পাবে না।

এমন পরিস্থিতে আসছে ঈদে ‘ভাইজান এলো রে’ ছবিটির মুক্তি অনিশ্চয়তার মুখে পড়ে গেল। বাংলাদেশি ছবি হিসেবে আপাতত ভাবা যাচ্ছে না এটিকে। দেখার পালা সাফটায় বাংলাদেশের সিনেমা হলে ‘ভাইজান এলো রে’ মুক্তি পায় কী না। তবে সাফটায় এলেও ঈদে মুক্তি সম্ভব নয়। কারণ, ঈদে দেশীয় কোনো চলচ্চিত্র মুক্তি পেলে সাফটায় কোনো ছবি আমদানি করার নিয়ম নেই বলেই জানালেন বদিউল আলম খোকন। আসছে ঈদে প্রায় তিনটি দেশীয় সিনেমা প্রস্তুত রয়েছে মুক্তি পাবার জন্য। সেদিক থেকে সাফটায় ‘ভাইজান এলো রে’ দেখতে হবে ঈদের আগে বা পরে।

‘ভাইজান এলো রে’ ছবিতে শাকিব খানের বিপরীতে অভিনয় করেছেন শ্রাবন্তী ও পায়েল সরকার। এতে আরও অভিনয় করেছেন দীপা খন্দকার, মনিরা মিঠু, রজতাভ দত্ত, বিশ্বনাথ, শান্তিলাল মুখার্জিসহ অনেক তারকা।

Check Also

আবারও ইতিহাস করলো অপরাধী’গানের ২৫ দিনে দুই কোটি!

জিয়া উদ্দিন আলম –  ইতিহাস করলো বাংলাদেশের নবাগত শিল্পি আরমান আলিফ একটি গান ‘অপরাধী’। ২৫ দিনে দুই …